আজ : ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং , ৭ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
Breaking News

গ্যাস্ট্রিকের যন্ত্রণা, জাদুকরি জুসে হবে দূর!

গ্যাস্ট্রিক একটি সাধারণ রোগ। পেটের অন্যান্য সমস্যার থেকে গ্যাস্ট্রিক এটি খুবই বিরক্তিকর। গ্যাস্ট্রিক মূলত আমাদের খাদ্যাভ্যাস, জীবনযাপনের নানা ভুলের কারণেই হয়ে থাকে।

চিকিৎসকের মতে, খাবার সময় একটু আগে-পরে হলে এবং বেশি ভাজাপোড়া ও তেল মসলা জাতীয় খাবার খেলে গ্যাস্টিক দেখা দেয়। গ্যাস্টিক হলে বমি বমি ভাব হয়। পেট সব সময় ভরাট মনে হয়, পেটে জ্বালা পোড়া, বদহজম হয়ে থাকে।

এ থেকে প্রতিকার পেতে আমরা প্রাথমিক পর্যায়ে এন্টাসিডের মতো ওষুধ খেয়ে থাকি। অবস্থা একটু জটিল হলেই চিকিৎসকের কাছে যাই।

তবে আপনি চাইলে গ্যাস্টিক সমস্যার সমাধান ঘরেই করতে পারেন। রান্না ঘরের পড়ে থাকা কিছু সবজির জুস খুব সহজেই গ্যাস্ট্রিকের যন্ত্রণা থেকে আপনাকে মুক্তি দিতে পারে।

আসুন ওই জুস তৈরির প্রস্তুত-প্রণালী জেনে নিই :

গাজর ও আলুর জুস

উপকরণ : ২টি মাঝারি আকারের গাজর, একটি মাঝারি আকারের আলু, এক ইঞ্চি পরিমাণ আদা।

প্রস্তুত প্রণালি :

গাজর ও আলু ভালো করে ধুয়ে খোসা ছাড়িয়ে ছোট ছোট খণ্ড করে কেটে নিন। আদা কুচি করে সব উপকরণ একসঙ্গে ব্লেন্ডারের ব্লেন্ড করে ছেঁকে জুস তৈরি করুন। এই জুস প্রতিদিন পান করুন। জুসটি আপনার গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা সমাধান করবে।

গাজর ডেটক্স ফুড নামে পরিচিত যা আমাদের পাকস্থলীসহ দেহের অভ্যন্তরীণ অঙ্গপ্রত্যঙ্গকে টক্সিনমুক্ত রাখতে সহায়তা করে। এবং আলুর রস আমাদের পেট ঠাণ্ডা রাখতে বিশেষভাবে কাজ করে।

পেয়ারা ও কলার জুস

উপকরণ : দুইটি পেয়ারা, দুইটি কলা ও পরিমাণ মতো পানি।

প্রস্তুত প্রণালি :

পেয়ারা এবং কলা ছোট করে কেটে সামান্য পানি দিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। পরে ছেঁকে জুসটি প্রতিদিন পান করুন।

পেয়ারা এবং কলা দুটি ফলেই প্রচুর পরিমাণে ফাইবার রয়েছে। আর এ কারণেই এই পানীয়টি নিরাপদে সমস্যা দূর করতে বিশেষভাবে কার্যকরী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Comment moderation is enabled. Your comment may take some time to appear.